নানা প্রতিশ্রুতিতে শেষ হলো প্রবাসী বাংলাদেশীদের বিশ্ব সম্মেলন

159

আরবিনা ইমরান, মালয়েশিয়া :

সারা বিশ্বে থাকা এক কোটিরও বেশি প্রবাসীকে এক ছাতার নিচে আনার প্রতিশ্রুতিতে পর্দা নামলো প্রবাসী বাংলাদেশীদের দু’দিনের বিশ্ব সম্মেলন। মালশিয়ার কুয়ালালামপুরের বারজায়া টাইমস স্কয়ারের এ সম্মেলন থেকে ওয়ার্ল্ড বাংলাদেশ এসোসিয়েশন গঠন করার উদ্যোগও নেয়া হয়।

প্রথমবারের মতো অনুষ্ঠিত বাংলাদেশী প্রবাসীদের বৃহত্তম এ সম্মেলনে বাংলাদেশ গ্লোবাল সামিটের উদ্যোক্তা ছিলো অল ইউরোপিয়ান বাংলাদেশ এসোসিয়েশন আয়েবা।দুই দিনব্যাপী এই সামিটে  ইউরোপ ছাড়াও অংশ নেন বিশ্বের বিভিন্ন প্রান্তে ছড়িয়ে থাকা বাংলাদেশীরা।

শনিবার সকালে কয়েক শতাধিক প্রবাসী বাংলাদেশীদের উপস্থিতিতে বাংলাদেশ গ্লোবাল সামিট ২০১৬ এর উদ্বোধন করেন মালয়েশিয়াস্থ বাংলাদেশী হাই কমিশনার মো: শহীদুল ইসলাম।

এরপর একে একে শুভেচ্ছা বক্তব্য রাখেন আয়েবা নেতৃবৃন্দসহ বিশ্বের নানা প্রান্ত থেকে আসা প্রবাসীরা। সম্মেলনে বাংলাদেশ প্রতিদিনের সম্পাদক ও নিউজ টোয়েন্টিফোরের সিইও নঈম নিজাম, সংবাদ প্রতিদিন সম্পাদক আবেদ খান, বাংলাদেশ ফেডারেল সাংবাদিক ইউনিয়ন (বিএফইউজে)’র প্রেসিডেন্ট মঞ্জুরুল আহসান বুলবুল, ভোরের কাগজের সম্পাদক শ্যামল দত্ত, পূর্বপশ্চিম ডট কম এর সম্পাদক পীর হাবিবুর রহমান, যুগান্তরের সাইফুল আলম, বাংলানিউজ টুয়েন্টিফোর ডট কম এর আব্দুল্লাহ হাফিজ, বিবিসি বাংলার সাবির মোস্তফাসহ বেশ কয়েকজন সিনিয়র সাংবাদিক অংশ নেন।

বিশ্বের বিভিন্ন স্থান থেকে আসা বাংলাদেশীদের অংশগ্রহণে অনুষ্ঠান রূপ নেয় মালয়েশিয়ার মাটিতে এক টুকরো বাংলাদেশে। যাদের সবার স্বপ্ন বাংলাদেশকে এগিয়ে নিয়ে যাওয়া। বিশ্বের প্রবাসী বাংলাদেশীদের এক কাতারে নিয়ে আসার চ্যালেঞ্জ বাস্তবায়ন হলে উপকৃত হবে বাংলাদেশ- সামিটে এই বিষয়ে গুরুত্বারোপ করেন সবাই।

সামিটের আয়োজক অল ইউরোপিয়ান এসোসিয়েশন অব বাংলাদেশ সবার স্বতফূর্ত অংশগ্রহণে দারুন অনুপ্রাণিত। এই সামিটকে নতুন আরেকটি সম্ভাবনার সূচনা হিসেবে দেখছেন তারা। উদ্বোধনী পর্বেরপর প্রবাসীদের বিনিয়োগ এবং গণমাধ্যমের ভূমিকা নিয়ে অনুষ্ঠিত হয় টক শো।

দুই দিনব্যাপী এই সামিট শেষ হয়েছে রবিবার। দ্বিতীয় দিনে তথ্যও প্রযুক্তি, পর্যটন, ব্যাবসা-বানিজ্য ও বিনিয়োগসহ নানা বিষয়ে সেমিনার অনুষ্ঠিত হয়। ব্যাবস্থা রাখা হয় মুক্ত আলোচনারও। সমাপনি অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি হিসাবে বক্তব্য রাখেন মালয়েশিয়ার পর্যটন মন্ত্রী।

সংক্ষিপ্ত বক্তব্যে তিনি মালয়েশিয়ায় প্রবাসী বাংলাদেশীদের ভূয়সী প্রশংসা করে বলেন, মালয়েশিয়াতে বিনিয়োগে সকলের দার উন্মুক্ত তবে বাংলাদেশের মতো মুসলিম দেশের জন্য মালয়েশিয়া আরো বেশি উদার। তিনি বাংলাদেশীদের সেকেন্ড হোমের জন্য উৎসাহিত করেন।

সামিটে অন্যান্যের মধ্যে বক্তব্য রাখেন- মালয়েশিয়াস্থ বাংলাদেশী হাইকমিশনার মো: শাহিদুল ইসলাম, বিজেএমইএ’র সাবেক সভাপতি আতিকুল ইসলাম, আয়োজক সংগঠন আয়েবার প্রধানউপদেষ্টা আহমেদ উস সামাদ চৌধুরী, সভাপতি ইঞ্জিনিয়ার জয়নুল আবেদীন, সাধারণ সম্পাদক কাজী এনায়েতুল্লাহ, মালশিয়া কমিউনিটি নেতা মকবুল হোসেন মুকুলসহ পৃথিবীর বিভিন্ন
দেশ থেকে আসা বক্তারা।

LEAVE A REPLY