নিউইয়র্কে ১৮ বাংলাদেশি নারী শিল্পীর চিত্র প্রদর্শনী

60

বিশ্বের রাজধানী হিসেবে খ্যাত নিউইয়র্ক সিটির ম্যানহাটানে বাংলাদেশের ১৮ মহিলা শিল্পীর শিল্পকর্ম নিয়ে ৫ দিনব্যাপি একটি চিত্র প্রদর্শনী শুরু হয়েছে। বৃহস্পতিবার শুরু হওয়া ‘বাংলাদেশের নারী শিল্পীদের চিত্র প্রদর্শনী’ শিরোনামের এ  প্রদর্শনীতে প্রায় ৩০ টি শিল্পকর্ম স্থান পেয়েছে।

চেলসি আর্ট ডিস্ট্রিক্ট এর বিখ্যাত আর্ট গ্যালারী ‘রগ স্প্যাস’ এ বৃহস্পতিবার সন্ধ্যায় প্রদর্শনীর আনুষ্ঠানিক উদ্বোধন করেন জাতিসংঘে বাংলাদেশের স্থায়ী প্রতিনিধি ও রাষ্ট্রদূত মাসুদ বিন মোমেন।

রাষ্ট্রদূত মাসুদ বিন মোমেন বাংলাদেশের সমৃদ্ধ ঐতিহ্য, সংস্কৃতি ও নারীর ক্ষমতায়নের কথা তুলে ধরে বাংলাদেশের নারী শিল্পীদের শিল্পকর্মের প্রশংসা করেন। বাংলাদেশের ও প্রবাসী শিল্পীদের শিল্পকর্মের সমন্বয় উভয় ক্ষেত্রের শিল্পীদের প্রেক্ষীত তুলে ধরবে বলে তিনি আশাবাদ ব্যক্ত করেন। তিনি প্রদর্শনী আয়োজনের জন্য কনস্যুলেটকে ধন্যবাদ জানান।

নিউইয়র্ক স্টেট ডিপার্টমেন্টের আঞ্চলিক অফিসের পরিচালক জেফ্রি আর. সেলারস তার বক্তব্যে প্রদর্শনী আয়োজনের জন্য অভিনন্দন জানান। তিনি বলেন, ‘বন্ধুপ্রতিম দু’দেশের মানুষের মধ্যে গভীরতর সংযোগ তৈরীর ক্ষেত্রে সংস্কৃতি একটি বিশেষ ভূমিকা পালন করতে পারে’।

ঢাকার ‘গ্যালারী২১’, নিউইয়র্কের ‘দ্য নিউইর্য়ক আর্ট কানেকশন’ এবং ‘বাংলাদেশী-আমেরিকান আর্র্টিস্টস ফোরাম’ এ চিত্র প্রদর্শনী আয়োজন করেছে।
উদ্বোধনী পর্বে প্রদর্শনীর হোস্ট কন্সাল জেনারেল মোঃ শামীম আহসান, এনডিসি আগত অতিথিদের স্বাগত জানান। এ সময় শামীম আহসান তার বক্তব্যে সংশ্লিষ্ট সবাইকে সহযোগিতার জন্য আন্তরিক ধন্যবাদ জানান। এ চিত্র প্রদর্শনী বহুজাতিক এ সিটিতে বাংলাদেশ সম্পর্কে একটি ইতিবাচক ধারনা সৃষ্টিতে ভূমিকা রাখবে বলে কন্সাল জেনারেল আশাবাদ ব্যক্ত করেন।

যুক্তরাষ্ট্রের পদস্থ কর্মকর্তা, বিভিন্ন দেশের কনসাল জেনারেলসহ কূটনীতিকবৃন্দ, সাংস্কৃতিক ব্যক্তিত্ব, সুশীল সমাজের সদস্য এবং বিশিষ্ট প্রবাসী বাংলাদেশীসহ অনেকে উপস্থিত ছিলেন উদ্বোধনীতে।

প্রদর্শনীতে স্থান পাওয়া চিত্রকর্মের শিল্পীরা হচ্ছেন, বাংলাদেশ থেকে শামীম সুবরানা, কনক চম্পা চাকমা, রোকেয়া সুলতানা, ফরিদা জামান, গুলশান হোসেন, নাজিয়া আন্দালিব প্রিমা, দিলরুবা লতিফ রোজি, বিপাশা হায়াত, আফরোজা জামিল কঙ্কা  এবং সামিনা নাফিজ। প্রবাসীদের মধ্য থেকে শামীম বেগম, জেবুন্নেছা কামাল, সালমা কানিজ, মাসুদা কাজী, হালিদে সালাম, শামীম আরা, কানিজ হোসনে আকবরী এবং সাজেদা সুলতানা।

প্রদর্শনী উপলক্ষ্যে একটি মনোরম ক্যাটালগও প্রকাশিত হয়েছে। আগামী ৩১ জুলাই সোমবার পর্যন্ত প্রতিদিন সকাল ১০ টা  থেকে সন্ধ্যা ৬ টা পর্যন্ত এ প্রদর্শনী চলবে।

বিদেশে বিশেষত মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রে বাংলাদেশ সম্পর্কে একটি ইতিবাচক ধারনা তৈরীর প্রয়াস হিসেবে কনস্যুলেট জেনারেল এর জনকূটনীতি কার্যক্রমের অংশ হিসেবে প্রদর্শনী অনুষ্ঠিত হচ্ছে বলে আয়োজকরা জানিয়েছেন।

LEAVE A REPLY