২০২০ সালে চালু হতে যাচ্ছে দেশের প্রথম হাইওয়ে এক্সপ্রেস

8

মাদারীপুর প্রতিনিধি

নির্মাণ কাজ শেষে আগামী বছরই চালু হতে যাচ্ছে রাজধানী ঢাকা থেকে ফরিদপুরের ভাঙ্গা পর্যন্ত দেশের প্রথম হাইওয়ে এক্সপ্রেস। অভ্যন্তরীণ যোগাযোগ ব্যবস্থার উন্নয়নে পদ্মাসেতু চালুর আগেই পশ্চিম-মধ্য ও দক্ষিণাঞ্চলের মানুষ এই সিক্স লেনের সড়কটি ব্যবহার করতে পারবেন। সড়কটির নির্মাণ শেষে উদ্বোধন হলে বদলে যাবে দক্ষিণ-পশ্চিমাঞ্চলের সড়ক যোগাযোগের চিত্র।

সংশ্লিষ্ট সূত্রে জানা গেছে, দক্ষিণ-পশ্চিম ও মধ্যাঞ্চলের সঙ্গে সড়কপথে যোগাযোগের পরিবর্তন আনতে রাজধানীর যাত্রবাড়ি থেকে ফরিদপুরের ভাঙ্গা পর্যন্ত ৫৫ কিলোমিটার সড়ক টু লেন থেকে সিক্স লেনে উন্নীতকরণ প্রকল্প হাতে নেয় সরকার। ছয় লেন বিশিষ্ট মহাসড়কটি দেশের প্রথম হাইওয়ে এক্সপ্রেস। ৬ হাজার ৭শ’ কোটি টাকা ব্যয়ে নির্মিত সড়কটিতে ছোট বড় ৩১টি সেতুর সাথে থাকছে ৪৫টি কালভার্ট, ৬টি ফ্লাইওভার ও ৪টি রেল ওভারপাসসহ একাধিক আধুনিক সুবিধা।

পদ্মা সেতুর সংযোগ সড়কের পরবর্তী অংশে ভারি যানবাহনের জন্য পৃথক ফোর লেন ছাড়াও রয়েছে হালকা যানবাহনের জন্য আলাদা টু লেন। এছাড়াও যাত্রী, পণ্য পরিবহন নিরাপদ, সময় সাশ্রয়ী ও আরামদায়ক করতে সড়কটিতে রয়েছে ওভারপাস, আন্ডারপাস, কালভার্ট, ফ্লাইওভারসহ আধুনিক সব সুবিধা। সড়কটির নির্মাণ শেষে উদ্বোধন হলে বদলে যাবে দক্ষিণ-পশ্চিম ও মধ্যাঞ্চলের সড়ক যোগাযোগের চিত্র।

মাদারীপুর সচেতন নাগরিক কমিটির সদস্য শাহাদাত হোসেন লিটন বলেন, সড়কটি চালু হলে যোগাযোগ ব্যবস্থায় নিরাপদ সড়কের দৃষ্টান্ত হবার পাশাপাশি দুর্ঘটনা শূন্যের কোঠায় নেমে আমবে বলে মনে করছি।

মাদারীপুর সড়ক ও জনপথ অধিদপ্তরের নির্বাহী প্রকৌশলী মোহাম্মদ জাহাঙ্গীর আলম বলেন, এতে দক্ষিণাঞ্চলের ২১ জেলার মানুষের ব্যাপক আর্থ-সামাজিক উন্নয়ন ঘটবে বলে মনে করেন সড়ক বিভাগের এই কর্মকর্তা।

তিনি বলেন, একাধিক ঠিকাদারী প্রতিষ্ঠানের বাস্তবায়নে বাংলাদেশ সেনাবাহিনীর ২৪ ইঞ্জিনিয়ারিং কনস্ট্রাকশন ব্রিগেডের তত্ত্বাবধান করছে পুরো প্রকল্পটি। সবকিছু ঠিক থাকলে আগামী বছরে সড়কটি জনসাধারনের জন্য খুলে দেয়া হবে

LEAVE A REPLY